ডায়াবেটিসের রোগীদের কী সাবুদানা খাওয়া উচিত?

পুষ্টিগুনে ভরপুর সাবু। সাবু বলতেই চোখের সামনে ভেসে ওঠে ছোট ছোট মুক্তার মতো দানা। ভিজিয়ে রেখে তা দুধকলা দিয়ে মেখে খাওয়া। ডালের খিচুড়ির মতো সাবুর খিচুড়িও কিন্তু কম উপাদেয় হয় না।

জ্বর হলে আমাদের কোনো কিছু খেতে ভালো লাগে না। তাই এসময় অনেক ডাক্তার সাবু খাওয়ার পরামর্শ দেয়। আসলে জ্বরে সাবু একটি উত্তম খাবার। জ্বরে যেহেতু এটি একটি উত্তম খাবার তাই ডায়াবেটিস রোগীদের জন্যও এটি উত্তম খাবার কিনা বা ডায়াবেটিসের রোগীদের সাবুদানা খাওয়া উচিত কিনা? সে সম্পর্কে একটা কথা থেকে যায়-

আমরা সবাই জানি, আর দশটা রোগের মতো নয় ডায়াবেটিস। শুধু ওষুধ খেলেই ডায়াবেটিস দূর হয়ে যায় না। বরং তা নিয়ন্ত্রণে খাদ্যভ্যাস ও জীবনচর্চায় পরিবর্তন আনতে হয়। ডায়াবেটিস একটি মেটাবলিক ডিজঅর্ডার, যার কারণে হঠাৎ করে ব্লাড সুগার বেড়ে যেতে পারে এবং এর কারণে স্বাস্থ্য সমস্যা তৈরি হতে পারে।

ডায়াবেটিস হলে কার্বোহাইড্রেট অর্থাৎ শর্করা জাতীয় খাবার কম খাওয়া উচিত এটা জানেন অনেকেই। তবে কিছু খাবারে উপকারী কার্বোহাইড্রেট থাকে যা ব্লাড সুগার নিয়ন্ত্রণে কাজে আসতে পারে।

Sabudana Recipe

এমনই একটি খাবার হলো সাবুদানা। অনেকেই ভাবতে পারেন সাবুদানা শর্করা বলে ডায়াবেটিস রোগীরা তা খেতে পারবেন না। কিন্তু আসলেই কী তাই?

সাবুদানা কি ডায়াবেটিস রোগীর জন্য নিরাপদ?

সাবুদানায় রয়েছে প্রচুর ক্যালসিয়াম ও ফাইবার। তা শক্তি বর্ধক খাবার হিসেবেও পরিচিত। এ কারণে অনেকেই জ্বর হলে রোগীকে সাবুদানা খাওয়ার পরামর্শ দেন। এছাড়া কোষ্ঠকাঠিন্য দূর করতে খুব কার্যকরী।

স্টার্চ বেশি থাকায় সাবুদানা অনেকটা সাদা ভাত বা আলুর মতোই, ডায়াবেটিস রোগীদের তাই নিয়মিত খাওয়া ঠিক নয়। ডায়াবেটিস রোগীদের সাবু খেতে হলে অবশ্যই ডাক্তারের পরামর্শ অনুযায়ী পরিমাণ মতো খেতে হবে।

রেফারেন্স:
Share