বৃষ্টির পানি পানের স্বাস্থ্য উপকারিতা।

বৃষ্টির পানি প্রকৃতির সবচেয়ে বিশুদ্ধ পানি। বৃষ্টির পানীতে অশুদ্ধ কিছুই নেই। বৃষ্টির পানির অনেক স্বাস্থ্য উপকারিতা রয়েছে। এতে রয়েছে প্রাকৃতিক খনিজ (Natural minerals) যা স্বাস্থের জন্য খুবই উপকারী। কিন্তু অনেক ক্ষেত্রে এই পানি সংগ্রহের সময় এতে কিছু ময়লা যুক্ত হয়ে যায়। তাই পান করার আগে পানিকে অবশ্যই পরিস্কার করে নিতে হবে।

অনেকসময় বৃষ্টির পানি সংগ্রহ করাটা সহজ মনে হলেও, এটি সর্বদা নিরাপদ নাও হতে পারে। এতে বিদ্যমান নানা ধরনের দূষক আপনাকে অসুস্থ করতে পারে। আকাশ থেকে সরাসরি যে বৃষ্টি পড়েছে শুধু সেই বৃষ্টির পানি পান করার জন্য সংগ্রহ করা উচিৎ।

বৃষ্টির পানি পানের স্বাস্থ্য উপকারিতা:

চলুন জেনে নেওয়া যাক, বৃষ্টির পানি পানের স্বাস্থ্য উপকারিতা সম্পর্কে

রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বৃদ্ধি করে :

বৃষ্টির পানি বিষাক্ত ক্ষতিকর কেমিক্যাল মুক্ত। সাধারণত ট্যাপের পানি জীবাণুমুক্ত করতে ক্লোরিন ব্যবহার করা হয়। আর ফ্লোরাইড আসে মাটির নীচ থেকে। এতে করে বেশি মাত্রায় ক্লোরিন বা ফ্লোরাইড পেটে গেলে গ্যাসট্রাইটিস, মাথাব্যথার মতো সমস্যা সৃষ্টি হয়। বৃষ্টির পানিতে ফ্লোরাইড বা ক্লোরিন কোনোটিই থাকে না। তাই বলাই যায় বৃষ্টির পানি পানের স্বাস্থ্য উপকারিতা অপরিসীম।

পাকস্থলীর সমস্যা দূর করে :

পাকস্থলীর বিভিন্ন সমস্যায় বৃষ্টির পানি খুবই কার্যকরী। পাকস্থলীতে অ্যাসিডিটি বা আলসার থাকলে বৃষ্টির পানি ওষুধের সমান কাজ করে। পাকস্থলীর সমস্যা দূর করার পাশাপাশি বৃষ্টির পানি হজমশক্তি বাড়ায়। বৃষ্টির পানিতে থাকে অ্যালকালাইন PHP যা অ্যাসিডিটি কমায় এবং হজমশক্তি বাড়াতে সাহায্য করে।

ক্যান্সার প্রতিরোধ করে :

বৃষ্টির পানি পানের আরেকটি গুরুত্বপূর্ণ স্বাস্থ্য উপকারিতা হলো ক্যান্সার প্রতিরোধ করে। বৃষ্টির পানিতে থাকা অ্যালকালাইন PHP ক্যান্সার কোষের বৃদ্ধি রুখে দেয়। ক্যান্সার রোগীদের ক্ষেত্রে অ্যান্টিঅক্সিডেন্টের কাজ করে বৃষ্টির পানি। তাই ক্যান্সার দূর করতে বৃষ্টির পানি পান করতে হবে।

চুল ভালো রাখে :

বৃষ্টির পানি ব্যবহারের ফলে চুল সুন্দর ও উজ্জ্বল হয়। বৃষ্টির পানিতে কোনো ক্ষতিকর ক্যামিকেল না থাকায় পানি অত্যন্ত কোমল। এই পানিতে মাথা ধুয়ে নিলে শ্যাম্পু বা সাবানের চেয়েও ভালো কাজ দেয়। মাথার চামড়ার বিভিন্ন চর্মরোগ দূর করে ও চুলের গোড়া থেকে চুল শক্ত করে। বৃষ্টির পানি দিয়ে মাথা ধুলে তুলনামূলক ভাবে চুল কম পড়ে।

ত্বক উজ্জ্বল করে :

বৃষ্টির পানি ত্বকের জন্য অনেক উপকারী। সুন্দর সুস্থ ত্বক পেতে হলে বৃষ্টির পানির ব্যবহার অপরিহার্য। সুগন্ধি সাবানে থাকে অ্যাসিডিক PHP যা ত্বককে রুক্ষ ও প্রাণহীন করে দেয়। বৃষ্টির পানিতে এই সব উপাদান নেই। তাই বৃষ্টির সময় ফেসওয়াশ বা সাবানের বিপরীত হিসাবে বৃষ্টির পানি ব্যবহার করুন। এতে আপনার ত্বক উজ্জ্বল হবে।

ত্বকের ব্যাকটেরিয়াক দূর করে :

বৃষ্টির পানি ত্বকে থাকা বিভিন্ন ব্যাকটেরিয়াকে দূর করে ত্বকের বিভিন্ন সমস্যার সমাধান করে। ঘামাচি, চুলকানি দূর করতে বৃষ্টির পানি খুব কার্যকরী। এছাড়া বৃষ্টির পানি কোষে জমে থাকা খারাপ ব্যাকটেরিয়াকে দূর করে দেয়। এতে ত্বকের জ্বালা পোড়া ভাব দূর হয়।

রেফারেন্স: