ত্বকের যত্নে অ্যালোভেরার কয়েকটি ফেইস প্যাক।

অ্যালোভেরা ‘অমরত্বের উদ্ভিদ’ হিসাবে সুপরিচিত। এটি বেশ কয়েকটি ত্বকের সমস্যা সমাধানে একটি অলৌকিক এবং যাদুকরী চিকিৎসা হিসাবে সুপরিচিত। অ্যালোভেরার জেল মুখের দাগ, ব্রণ, পিম্পল এবং রোদে পোড়া কালো দাগ দূর করে। এছাড়া মুখ শীতল করতে, উজ্জ্বল করতে এবং ত্বকের সমস্যা সমাধান করতে সহায়তা করে। অ্যালোভেরা প্রাকৃতিক উপায়ে ত্বকের জন্য একটি দুর্দান্ত ময়েশ্চারাইজার। এটি যেমন একদিকে রুপচর্চায় ভূমিকা রাখে তেমনি এর রয়েছে নানা ঔষধী গুণ। ডায়াবেটিস থেকে শুরু করে কোষ্ঠকাঠিন্য রোধ করা পর্যন্ত অ্যালোভেরার ভূমিকা রয়েছে। নিচে কয়েকটি অ্যালোভেরার ফেইস প্যাক দেওয়া হলো –

অ্যালোভেরা ও হলুদ:

aelovera termaric
দুধ, অ্যালোভেরা জেল, এক চিমটি হলুদের গুঁড়ো এবং মধু একসাথে মিশিয়ে পেস্ট তৈরি করুন। এটি উজ্জ্বল এবং নরম ত্বক পেতে আপনাকে সাহায্য করবে। এই প্যাকটি ত্বকে ২০ মিনিট লাগিয়ে রাখার পর শুকিয়ে গেলে কুসুম গরম পানি দিয়ে মুখ ধুয়ে ফেলুন। প্রতি সপ্তাহে একবার ব্যবহার করার চেষ্টা করুন। এটি ত্বকের উজ্জ্বলতা বৃদ্ধি করবে। হলুদ ত্বকের উজ্জ্বলতা বাড়ানোর পাশাপাশি ব্রণের প্রকোপ কমায়। অপরদিকে, অ্যালোভেরা ত্বকের উজ্জ্বলতা বাড়ায় এবং কাঁচা দুধ ত্বকের পিএইচ(PH) লেভেল ঠিক রাখে। ফলে ত্বক নরম হয়।

অ্যালোভেরা ও শসার রস:

১ টেবিল চামচ অ্যালোভেরা জেল, ১ টেবিল চামচ শসার রস, ১ টেবিল চামচ রোজ অয়েল বা এসেনশিয়াল অয়েল, এর ফেইস প্যাক সেনসেটিভ ত্বকের জন্য অনেক উপকারী। সব উপকরণ এক সাথে মিশিয়ে প্যাক তৈরি করে নিন। প্যাকটি মুখে লাগিয়ে ১৫ মিনিট অপেক্ষা করুন। প্যাক শুকিয়ে গেলে ঠান্ডা পানি দিয়ে মুখ ধুয়ে ফেলুন। এটি আপনার ত্বকের অতিরিক্ত তেল, ময়লা দূর করে ত্বক পরিষ্কার করবে। এবং মুখে সতেজ ভাব এনে দেবে। এছাড়াও এটি সূর্যের আলো থেকে ত্বককে রক্ষা করবে।

অ্যালোভেরা ও লেবুর রস:

aelovera lemon juice
আপনার কি ড্রাই স্কিন? তাহেল এই ফেইস মাস্ক-টি আপনার জন্য একেবারে আদর্শ। কারণ অ্যালোভেরা অ্যান্টি-অক্সিডেন্টে পরিপূর্ণ, যা ব্রণ কমায়। এছাড়াও এই প্রাকৃতিক উপাদানটি লাগালে ত্বকের শুষ্কতা দূর হয়। অ্যালোভেরা জেল এবং কয়েক ফোঁটা লেবুর রস একসাথে মিশিয়ে প্যাক তৈরি করুন। এটি মুখ এবং ঘাড়ে ব্যবহার করে নিন। ১৫ মিনিট পর শুকিয়ে গেলে কুসুম গরম পানি দিয়ে মুখ ধুয়ে ফেলুন। এই প্যাক রোদেপোড়া ভাব দূর করতে সাহায্য করে।

অ্যালোভেরা ও গোলাপ জল:

ত্বকের দাগ দূর করতে অ্যালোভেরা ও গোলাপ জলের প্যাকটি বেশ কার্যকর। অ্যালোভেরা জেল এবং গোলাপ জল একসাথে মিশিয়ে নিন। এই প্যাকটি মুখ এবং ঘাড়ে ব্যবহার করুন। ১৫-২০ মিনিট পর শুকিয়ে গেলে ম্যাসাজ করে পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। এই প্যাকটি ত্বকের কালো দাগ, বয়সের ছাপ, ব্রণের দাগ দ্রুত দূর করে দেবে।

অ্যালোভেরা ও অলিভ অয়েল:

aelovera olive oil
অ্যালোভেরা জেল, অলিভ অয়েল এর তৈরি প্যাক ত্বকের জন্য অনেক কার্যকরী। অ্যালোভেরা জেলের সাথে অলিভ অয়েল তৈরি করে নিন। এবার এটি মুখ এবং ঘাড়ে লাগান। ১৫ মিনিট পর শুকিয়ে গেলে ঠান্ডা পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। এটি ত্বক ময়েশ্চারাইজ করে ত্বক পরিষ্কার করে। এই প্যাকটি শুষ্ক ত্বকের জন্য বেশ কার্যকর।

অ্যালোভেরা ও নিম পাতা:

১ চামচ অ্যালোভেরা জেল, ১ চামচ নিম পাতা বাটা, ১ টেবিল চামচ মধু দিয়ে পেস্টটি বানিয়ে নিন। তারপর ভাল করে মুখ ধুয়ে পেস্টটি লাগিয়ে নিন। ১৫ মিনিট রাখুন তারপরে ঠান্ডা পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। এই ফেইস প্যাকটি ব্রণের চিকিৎসার পাশাপাশি ব্রণের দাগ দূর করবে। পাশাপাশি স্কিন-এর শুষ্কতা দূর করতে এবং ত্বককে প্রাণোচ্ছল বানাতে অ্যালোভেরার উপকারীতা অসীম।

অ্যালোভেরা ও মুলতানি মাটি:

মুলতানি মাটি আমাদের ত্বকের জন্য খুব ভালো একটি প্রাকৃতিক উপাদান। অ্যালোভেরার সাথে মুলতানি মাটি মিশিয়ে আমরা ফেইস প্যাক বানিয়ে মুখে লাগাতে পারি। এক্ষেত্রে ১ চামচ মুলতানি মাটির সঙ্গে ১ চামচ অ্যালোভেরা জেল এবং পরিমাণ মতো গোলাপ জল বা দুধ মিশিয়ে পেস্ট বানিয়ে নিন। এই পেস্টটি মুখে লাগান এবং ১০-১৫ মিনিট অপেক্ষা করুন। তারপর ধুয়ে ফেলুন। মুলতানি মাটি ত্বকের অতিরিক্ত অয়েল শোষণ করে আপনার ত্বক করে তুলবে উজ্জ্বল। সব ধরনের ত্বকের জন্য এটি আদর্শ একটি প্যাক।

Share