কি কি খাবার খেলে ঘুম ভালো হয়। জেনে নিন।

“ঘুম” বা “ভালো ঘুম” একটা ওষুধের নাম। কি অবাক হচ্ছেন? নাকি বলবেন আরে মশায় মসকরা করছেন কেনো। না ভাই সত্যি কিছু কিছু রোগের ক্ষেত্রে ঘুম দামি ওষুধের মতো কাজ করে। রোগবালাইয়ের জন্য শুধু ভাইরাস, ব্যাকটেরিয়া ও পরিবেশ দায়ী নয়। নিজের বদ অভ্যাস ও অনিয়ন্ত্রিত জীবনব্যাবস্থা অনেকাংশে দায়ী।

ভালো ঘুম = ভালো স্বাস্থ্য

“Sleeping well makes us feel better, energetic, more alert” অর্থাৎ ভালো ঘুম আমাদের সজীব, প্রানোচ্ছল রাখে।

কর্মময় জীবনের জন্য দুটো গুরুত্বপূর্ণ জিনিস হলো–

  1. মনোযোগ ও
  2. কর্মস্পৃহা।

ভালো ঘুম এই দুয়ের জন্মদাতা।

ভালো ঘুমের জন্য কি কি খাবার খাবেন:

ভালো ঘুমের জন্য আমরা নিচের প্রাকৃতিক খাবারগুলি চেষ্টা করতে পারি –

আখরোট বাদাম (Walnuts):

যে খাবারগুলো ভালো ঘুম আনে সেই খাবারগুলোর তালিকার সর্বপ্রথমে আখরোটের (AKHROT) অবস্থান। কি আছে এই আখরোটে যে ভালো ঘুম আনতে এতো সহায়ক। এটি ট্রিপটোফেন-এর চমৎকার উৎস। ট্রিপটোফেন (Tryptophan) – হলো একটি অ্যামিনো এসিড যেটা ঘুম বৃদ্ধি করে থাকে। ট্রিপটোফেন – সেরোটোনিন ও মেলাটোনিন নামক রস শরীরে সরবরাহ করে অর্থাৎ হরমোন উৎপাদন করে দেহঘড়িকে সচল রাখে ভালো ঘুম দিয়ে ও কর্মচঞ্চল রেখে।

আলমন্ড বাদাম (Almonds):

আলমন্ড বাদাম – ম্যাগনেশিয়াম-এ ভরপুর। প্রচুর ম্যাগনেসিয়াম থাকায় এটি ভালো ঘুম আনতে ও হাড় গঠনে দারুন কার্যকর।

দুধ + মধু (Milk + Honey):

দুধে সবকয়টি ভিটামিন থাকে বলে একে পরিপূর্ণ খাবার বলা হয়। শুধু তাই নয় এতে ট্রিপটোফেন (tryptophan) থাকায় এটি ভালো ঘুম আনতে সহায়ক। প্রাকৃতিক চিনি সমৃদ্ধ মধু মস্তৃষ্কে মেলাটোনিন-এর প্রবেশ সহজ করে দেয়। তাই ঘুমোনের আগে এক গ্লাস দুধের মধ্যে দুই চামচ মধু মিশিয়ে খান আর হারিয়ে যান ঘুমের রাজ্যে।

কলা (Banana):

প্রকৃতির খামে মোড়ানো সুস্বাদু ফল কলা পটাসিয়াম ও ম্যাগনেসিয়াম-এর দারুন উৎস। পটাসিয়াম রক্তচাপ কমানোর পাশাপাশি ভালো ঘুম আনায়ন করে থাকে।

সামুদ্রিক মাছ বা ওমেগা-৩ সমৃদ্ধ মাছ:

স্যামন মাছ, টুনা মাছ, ইলিশ মাছ, পোনা জাতীয় মাছে ওমেগা-৩ ফ্যাটি এসিড বিদ্যমান। এছাড়া বেশিরভাগ সামুদ্রিক মাছে ও তেলযুক্ত মাছে ভিটামিন-ডি ও ওমেগা-৩ ফ্যাটি ( EPA এন্ড DHA ) এসিড পাওয়া যায়। যা আমাদের ঘুমকে বাড়িয়ে দেয়।

হারবাল চা (Passionflower Tea বা Chamomile Tea):

হারবাল চা খাওয়ার অভ্যাস ঘুমের জন্য বেশ সহায়ক। প্রতিদিন হারবাল চা খান আর ঘুমের সাগরে হারিয়ে যান।

ভাত খাওয়ার অভ্যাস :

ভাত শুধু আমাদের প্রধান খাবার নয়। বিশ্বের অনেক দেশের প্রধান খাবার ভাত। তবে গ্লাইসেমিক ইনডেক্স-এর উপরের দিকে সাদা ভাত এর অবস্থান। ভাত বেশি খেলে ঘুমও বেড়ে যায়।

এছাড়াও কিউই ফল, দই, আঙ্গুর ইত্যাদি খাবার খেলেও ঘুম ভালো হয়।

বেঁচে থাকার জন্য প্রতিদিন আমরা কতো দামি দামি ওষুধ খাচ্ছি। ওষুধের প্রতিক্রিয়ায় অনেক সময় আমাদের ঘুমের সমস্যা হয়। এছাড়া মানসিক চাপ, আবেগ, অনেক শব্দ ও আলো যুক্ত পরিবেশ, নাইট শিফট কাজ ইত্যাদি কারণে ঘুমের সমস্যা হয় যা আমাদের স্বাস্থ্যের জন্য ভালো না। ঘুমের এই সমস্যা দূর করতে আমরা প্রাকৃতিক এই খাবারগুলি খাওয়ার চেষ্টা করতে পারি।

Share